ব্রেকিং নিউজ

দেশের প্রথম ভার্চুয়াল রিয়ালিটি ল্যাব রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে

নিউজ ডেস্ক:বিভিন্ন রকম অগমেন্টেড, ভার্চুয়াল এবং মিক্সড রিয়ালিটির মাধ্যমে এখন কল্পনার পৃথিবীই নিচ্ছে বাস্তব রূপ। পৃথিবীর অনেক দেশেই ভার্চুয়াল জগতে ভ্রমণ, গেমিং, পড়াশোনা, শপিং কিংবা জটিল রোগেরও সমাধান হচ্ছে।

বাংলাদেশও যেতে চাচ্ছে সেদিকেই। তাই বিভিন্ন রকম রিয়ালিটিতে দক্ষ জনশক্তি গড়তে সম্পূর্ণ সরকারি অর্থায়নে দেশের প্রথম ভার্চুয়াল প্রযুক্তির ল্যাব তৈরি হয়েছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে।

শুধু চোখের সাথে একটি ভিআর বক্স লাগিয়েই আপনি চলে যেতে পারেন ভার্চুয়াল জগতে। অনুভব করতে পারেন পৃথিবীর আদি থেকে অন্ত কিংবা বনে যেতে পারেন গেমিংএর মহানায়ক।

এমন প্রযুক্তির পথে বাংলাদেশকে হাঁটতে সাহায্য করছে সরকার। এজন্য রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে তৈরী করা হয়েছে দেশের প্রথম অত্যাধুনিক ল্যাব।

বিশ্ববিদ্যালয়ের চতুর্থ বিজ্ঞান ভবনে এই ল্যাবটিতে ৩০০ শিক্ষার্থীকে এআর, ভিআর ও এমআর প্রযুক্তির প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। আর এখানকার শিক্ষার্থীদের স্বপ্ন, অর্জিত জ্ঞানে একদিন বিশ্বজয়ের।

এআর, ভিআর এমআর ল্যাব রাজশাহীর প্রশিক্ষক মুসাব্বির ইসলাম ও খাদেমুল ইসলাম মোল্যা জানান, এই ল্যাবে ভার্চুয়াল অ্যাপস ডেভেলপ থেকে শুরু করে প্রোগ্রামিং এর সব কিছুই শেখানো হচ্ছে। আর খুব শিগগিরই এই প্রযুক্তি জনপ্রিয় হবে বলে দাবি বিশেষজ্ঞদের।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক জানালেন, বিশ্বের সাথে তাল মেলাতে চতুর্থ শিল্পবিল্পবে প্রয়োজন প্রযুক্তিগত দক্ষতা।

প্রায় ৪ কোটি টাকা ব্যয়ে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক অথিরিটি এই ল্যাব প্রতিষ্ঠা করে ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে। এটি রাজশাহীতে নির্মাণাধীন “বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব হাইটেক পার্ক” এর একটি প্রকল্প।

Spread the love

Related posts