ব্রেকিং নিউজ

বাংলাদেশে আইএসের কোনো খলিফা নেই: মনিরুল

নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশে আইএসের কোনো খলিফা নেই বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

সম্প্রতি বিভিন্ন দেশে ঘটে যাওয়া সন্ত্রাসী হামলার ধরন ও বাংলাদেশের অবস্থান সম্পর্কে জানতে ‘মিট উইথ মনিরুল ইসলাম’ শিরোনামের ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ক্র্যাব)।

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক সন্ত্রাসী সংগঠন আইএস চলতি বছরের শুরুতে একটি সাময়িকীতে বাংলাদেশে তাদের খলিফা নিয়োগের দাবি করেছিল। এ প্রসঙ্গে সিটিটিসির প্রধান মনিরুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশে আইএসের কোনো খলিফা নেই। এমন হতে পারে, প্রবাসী বাংলাদেশি কেউ আইএসে যোগ দিলে তাকে হয়তো খলিফা বানানো হয়েছে। তবে পুলিশের কাছে এ ধরনের সুনির্দিষ্ট কোনো তথ্য নেই।

সিরিয়া থেকে আইএসের বাংলাদেশি কোনো সদস্যের বাংলাদেশে প্রবেশের তথ্য আছে কি না? জানতে চাইলে মনিরুল বলেন, ২০১৪ সালে বাংলাদেশ থেকে সিরিয়ায় গিয়ে যারা আইএসে যোগ দিয়েছিল, তাদের পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়েছে। ফলে সরাসরি তাদের ফেরত আসার সুযোগ নেই। অন্য কোনো উপায়েও যাতে কেউ আসতে না পারে, সে জন্য গোয়েন্দা সংস্থা তৎপর আছে।

অনুষ্ঠানে মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘শ্রীলঙ্কায় ধর্মীয় উপাসনালয়ে আত্মঘাতী হামলার ঘটনা বাংলাদেশের উগ্রবাদী সংগঠনগুলোকে অনুপ্রাণিত করতে পারে। তবে সাংগঠনিকভাবে সংগঠনগুলো দুর্বল থাকায় নিকট ভবিষ্যতে তাদের বড় ধরনের কোনো হামলার সক্ষমতা নেই। যদিও অনেক সংগঠন নতুন করে সংগঠিত হওয়ার চেষ্টা করছে। তবে সেটা এই মুহূর্তে আশঙ্কার কারণ নয়।’

নিকট ভবিষ্যতে বাংলাদেশে জঙ্গি হামলার কোনো আশঙ্কা নেই উল্লেখ করে মনিরুল ইসলাম আরও বলেন, হোলি আর্টিজানে হামলার পর বাংলাদেশে জঙ্গিবাদের আমদানিকারীদের অনেককে গ্রেফতার ও চিহ্নিত করা হয়েছে। এখনো কিছুসংখ্যক পলাতক আছে। তাই আমাদের আত্মতুষ্টিতে থাকার কারণ নেই।

মনিরুল ইসলাম বলেন, বর্তমানে সারা বিশ্বে ধর্মীয় উগ্র মতবাদের পাশাপাশি বর্ণবাদের কারণেও জঙ্গি হামলার ঘটনা ঘটছে। তাই কেউ যাতে বিকৃত মতবাদে প্রভাবিত না হয়, সেদিকে সবাইকে সজাগ থাকতে হবে।

0

Spread the love

Related posts