পাঁচমিশালি

সমুদ্রের মধ্যে পরিত্যক্ত দ্বীপ

নিউজ ডেস্ক: সমুদ্রের পানিরাশির মধ্যে একখন্ড সবুজ দ্বীপ। কোথাও কোথাও রয়েছে মানুষের অস্তিত্ব। আবার কোনোটা জনমানবহীন। জাপানের নাগাসাকি থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরে সমুদ্রের মধ্যে এমনই একটি দ্বীপ রয়েছে। নাম হাসিমা দ্বীপ কিংবা গুনকাঞ্জিমা। এই দ্বীপের আয়তন মাত্র ০.০৬৩ বর্গ কিলোমিটার। ২০০৫ সাল থেকে জাপানের নাগাসাকির অন্তর্ভুক্ত দ্বীপটি।

ছোট্ট একটি দ্বীপ, অথচ একসময় এখানে বসবাস করতেন প্রায় ৬ হাজার মানুষ। বহুতল ভবন, স্কুল, হাসপাতাল সব মিলিয়ে শহর ছিল এটি। দ্বীপটিতে ছিল ১৫টি অ্যাপার্টমেন্ট আর প্রায় ১০০টি ছোট দোকান। ১৯৭৪ সালের এপ্রিল মাসে রাতারাতি বদলে যায় শহরের ছবি। শহর মুহূর্তে পরিত্যক্ত হয়ে যায়। রাতারাতি হয়ে ওঠে ভূতুড়ে শহর। তবে এখনও দ্বীপের ওপর থেকে দেখলে এখনো মনে হবে নিশ্চয়ই এখানে মানুষের বসবাস আছে। তবে বাইরে থেকে যা দেখতে পাওয়া যায় আসলে তা না। সেখানে কোনো মানুষের বসবাস নেই।

তবে আজও সমুদ্রের মধ্যে মাথা উঁচিয়ে পরিত্যক্ত হয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছে এই দ্বীপ। কংক্রিটের জঙ্গলকে ক্রমশ গ্রাস করে নিচ্ছে প্রকৃতি। বহুতলগুলোর এতটাই ভগ্নদশা যে, যখন তখন সেগুলো ভেঙে পড়তে পারে। জানা গেছে, অপুষ্টি দারিদ্রতা ও উন্নত জীবনের লক্ষ্যে এখানকার বাসিন্দারা অন্যত্র পাড়ি জমায়।

Back to top button