আইন-আদালত

আবরার হত্যা: ২৫ আসামির বিরুদ্ধে সাক্ষ্য গ্রহণ পিছিয়েছে

নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার হত্যা মামলায় ২৫ আসামির বিরুদ্ধে করা মামলার সাক্ষ্য গ্রহণ পিছিয়েছে। আবরারের বাবা অসুস্থ থাকায় সাক্ষ্য দিতে পারেননি, পরবর্তী সাক্ষ্য গ্রহণের দিন ৫ অক্টোবর ধার্য করা হয়েছে।

রোববার (২০ সেপ্টেম্বর) ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামানের আদালতে মামলার সাক্ষ্য গ্রহণের জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্তু মামলার বাদী আবরারের বাবা জন্ডিসে আক্রান্ত হওয়ায় রাষ্ট্রপক্ষ সময়ের আবেদন করলে আদালত সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে। এবং সাক্ষ্য গ্রহণের জন্য ৫ অক্টোবর দিন ধার্য করেন।

এর আগে, মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর) বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা মামলার ২৫ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে আদালত। এ অভিযোগ গঠনের ফলে মামলার আনুষ্ঠানিক বিচার শুরু হয়।

সেখানে বলা হয়, আগামী ২০ সেপ্টেম্বর থেকে ১ অক্টোবর পর্যন্ত বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যা মামলার টানা সাক্ষ্যগ্রহণ চলবে।

২০১৯ সালের ৬ অক্টোবর বুয়েটের শেরেবাংলা হলে তড়িৎ ও প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরারকে নৃশংসভাবে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। পরদিন আবরারের বাবা চকবাজার থানায় বাদী হয়ে মামলা করেন। হত্যা মামলার ৩ আসামি এখনও পলাতক। গত ৩ নভেম্বর এ মামলায় আদালতে চার্জশিট দেয় গোয়েন্দা পুলিশ।

চলতি বছরের মার্চে মামলাটির দ্রুত বিচারের জন্য আবরারের পরিবার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তরের জন্য আবেদন করেন। সে আবেদনে সাড়া দিয়ে আইন মন্ত্রণালয় আবরার হত্যা মামলাটি বিচারকাজ দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এ নির্ধারণ করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ৩ জন প্রসিকিউটর নিয়োগও দেয়া হয়েছে।

Back to top button
Close
Close