জাতীয়

চাকরির নামে প্রতারণা, ভুয়া কোম্পানির কোটি টাকা আত্মসাৎ

নিজস্ব প্রতিবেদক: চাকরি দেয়ার নামে ডিজিটাল প্লাটফর্মে ভুয়া নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রচার করে আসছিল উত্তরখানের নামসর্বস্ব সিনথিয়া সিকিউরিটি সার্ভিসেস লিমিটেড নামক প্রতিষ্ঠান। তারা অনলাইনে গুরুত্বপূর্ণ পদে জনবলের জন্য আকর্ষণীয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিতো। আগ্রহীরা টাকার বিনিময়ে যোগ দেওয়ার পর জানতে পারেন বেতন নয়, নতুন চাকরিপ্রত্যাশীকে এনে কমিশন আদায় করতে হবে। সেটাই তার বেতন।

এভাবে সাত থেকে আটশত চাকরি প্রত্যাশীর কাছ থেকে এই অভিনব প্রতারণায় কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে চক্রটি।

রাজধানীর উত্তরখান এলাকা থেকে প্রতারণা করে বিপুল সংখ্যক চাকরি প্রত্যাশীর অর্থ আত্মসাতকারী চক্রের সাত সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতারের পর এমন তথ্য জানিয়েছে র‌্যাব-১। র‌্যাব বলছে, গ্রেফতারদের কোম্পানি আইন সম্পর্কে কোনো ধারণা নেই এবং সরকারি অনুমোদন বা রেজিস্ট্রেশন নেই।

সোমবার রাজধানীর কারওয়ান বাজারে অবস্থিত র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান র‌্যাব-১ এর অধিনায়ক (সিও) লে. কর্নেল আব্দুল্লাহ আল মোমেন।

তিনি বলেন, রাজধানী ঢাকাসহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকায় কয়েকটি সংঘবদ্ধ প্রতারক চক্র দীর্ঘদিন ধরে ডিজিটাল প্লাটফর্মে চাকরি দেওয়ার নামে ভুয়া নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে আসছিল। অনলাইনে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে একটি চক্র প্রতারণার মাধ্যমে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাৎ করে আসছে বলে জানা যায়। তারা পরস্পর যোগসাজশে দীর্ঘদিন ধরে তাদের এমএলএম কোম্পানির বিভিন্ন প্রজেক্টে সাধারণ মানুষকে নিয়োগের প্রলোভন দেখিয়ে টাকা হাতিয়ে নিয়ে প্রতারণা করে আসছিল।

সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পাওয়ার পর র‌্যাব-১ ছায়া তদন্ত ও গোয়েন্দা নজরদারি বাড়ায়। এরই ধারাবাহিকতায় গত ২০ ফেব্রুয়ারি রাতে র‌্যাব-১ এর একটি দল ডিএমপির উত্তরখান থানাধীন আটিপাড়া বাজারের ‘মা মনোয়ারা সুপার মার্কেটের’ ৪র্থ তলায় সিনথিয়া সিকিউরিটি সার্ভিস লি. এর অফিসে অভিযান পরিচালনা করে সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়।

এসময় অভিযুক্তদের কাছ থেকে ৫টি ভুয়া নিয়োগপত্র, ৮০টি জীবন বৃত্তান্ত ফরম, ১ বক্স ভিজিটিং কার্ড, ১টি মানি রিসিট বই, ১০১টি ভর্তির ফরম ও অঙ্গীকারনামা, ২টি সিল, ১৫টি আইডি কার্ড, ৩টি রেজিস্টার, ৮টি মোবাইল ফোন, ৮ পাতা চাকরি বিজ্ঞাপনের স্ক্রিনশট এবং নগদ ২০ হাজার ৪০০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

Back to top button