জাতীয়

জাপানি রাষ্ট্রদূতের বক্তব্যে বিব্রত সরকার

নিউজ ডেস্ক: ২০১৮ সালে অনুষ্ঠিত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সূত্র ধরে আগামী জাতীয় নির্বাচন কেমন হওয়া উচিত, সে বিষয়ে ঢাকায় জাপানের রাষ্ট্রদূত ইতো নাইকি যে বক্তব্য দিয়েছেন তা সরকারকে বিব্রত করেছে।

কূটনৈতিক সূত্রগুলো জানিয়েছে, পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন মঙ্গলবার রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে একা বৈঠক করেছেন। একটি কূটনৈতিক সূত্র বলেছে, সরকারের বিব্রত হওয়ার বিষয়টি রাষ্ট্রদূতকে জানানো হয়েছে।

আগামী জাতীয় নির্বাচন আগের চেয়ে ভালো হবে এবং অবাধ ও নিরপেক্ষ হবে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করে রাষ্ট্রদূত ইতো নাওকি সোমবার বলেছেন, ‘আমি শুনেছি ২০১৮ সালে ভোটের আগের রাতে পুলিশ কর্মকর্তারা ব্যালট বক্স ভর্তি করেছিলেন। এমন উদাহরণ আর কোনো দেশে আছে বলে আমি শুনিনি। আমি আশা করব, এবার তেমন সুযোগ থাকবে না বা এমন ঘটনা ঘটবে না।’

ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন জাপানি রাষ্ট্রদূত। উক্ত অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূত একাধিকবার বলেছেন, তিনি যা বলেছেন, তা জাপান সরকারের বক্তব্য।
সরকারের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন জাপান সফর শুরুর দুই সপ্তাহেরও কম সময়ের মধ্যে রাষ্ট্রদূতের এই বক্তব্যে সরকারকে অস্বস্তিতে ফেলেছে।

প্রধানমন্ত্রীর আগামী ২৯ নভেম্বর তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে জাপান যাওয়ার কথা রয়েছে। পররাষ্ট্রসচিব ও রাষ্ট্রদূত এবং কর্মকর্তাগণ মঙ্গলবার উক্ত সফরের প্রস্তুতির নানাদিক খতিয়ে দেখেছেন।

Back to top button